হেযবুত তওহীদ

মানবতার কল্যাণে নিবেদিত

আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের

বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক পরিষদের উদ্যোগে ঈদ পুনর্মিলনী উপলক্ষে ‘সুস্থ সংস্কৃতি বিকাশে শিল্পী সমাজের ভূমিকা’ শীর্ষক আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। সোমবার বিকেল ৪টায় বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমীর জাতীয় সঙ্গীত ও নৃত্যকলা মিলনায়তনে অনুষ্ঠানটির উদ্বোধন করেন বাংলা একাডেমীর পরিচালক ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব ড. শাহাদাৎ হোসেন নিপু। পরে আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক পরিবেশনাসহ নানা আয়োজনের মধ্য […]

রাজধানীতে হেযবুত তওহীদের ঈদ পুনর্মিলনী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

শনিবার (১৫ জুলাই ২০২৩) দিনব্যাপি রাজধানীর গেন্ডারিয়ায় জহির রায়হান সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে হেযবুত তওহীদের উদ্যোগে ঈদ পুনর্মিলনী, আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরণী-২০২৩ অনুষ্ঠিত হয়েছে। আলোচনা সভার প্রতিপাদ্য ছিল ‘উগ্রবাদ, ধর্মব্যবসা ও অপরাজনীতির বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ সংগ্রাম অপরিহার্য’। অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোর’আন থেকে তেলাওয়াত করেন হেযবুত তওহীদের সদস্য হাফেজ ক্বারী মো. আসাদ মিয়া। এরপর পরিবেশিত হয় হেযবুত তওহীদের […]

রাজধানীতে হেযবুত তওহীদের ঈদ পুনর্মিলনী ও আলোচনা সভা

রাজধানীতে হেযবুত তওহীদের উদ্যোগে ঈদ পুনর্মিলনী, আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরণী ২০২৩ অনুষ্ঠিত হয়েছে। ‘উগ্রবাদ, ধর্মব্যবসা ও অপরাজনীতির বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ সংগ্রাম অপরিহার্য’ এই প্রতিপাদ্যের উপর এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে ঢাকা মহানগর হেযবুত তওহীদ। শনিবার (১৫ জুলাই) সকাল ৯টায় রাজধানীর গেন্ডারিয়ায় জহির রায়হান সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। হেযবুত তওহীদের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক […]

অনুষ্ঠিত হল কেন্দ্রীয় নারী সম্মেলন-2023

‘জড়তা, অন্ধত্ব, সংকীর্ণতা, ও ধর্মব্যবসার বিরুদ্ধে নারীদের জাগতে হবে, জাগাতে হবে’ এ প্রতিপাদ্য নিয়ে অরাজনৈতিক আন্দোলন হেযবুত তওহীদের কেন্দ্রীয় নারী সম্মেলন-২০২৩ অনুষ্ঠিত হয়েছে। ১৭ জুন ২০২৩ শনিবার সকালে রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউশন মিলনায়তনে এক বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্য দিয়ে এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। হেযবুত তওহীদের ঢাকা বিভাগীয় সভাপতি ডা. মাহবুব আলম মাহফুজের উদ্বোধনী বক্তব্যের মাধ্যমে এ আলোচনা […]

শহীদী জামে মসজিদে জুমা অনুষ্ঠিত

নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী উপজেলার পোরকরা গ্রামে হেযবুত তওহীদের মাননীয় এমামের বাড়ির প্রাঙ্গনে নির্মিত হয়েছে শহীদী জামে মসজিদ। এই মসজিদ নির্মাণকালে ২০১৬ সালে ধর্মব্যবসায়ী সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর হামলায় প্রাণ হারিয়েছিলেন হেযবুত তওহীদ সদস্য সোলায়মান খোকন ও ইব্রাহীম খলিল রুবেল। তখন গুজব রটানো হয়েছিল যে, এটি মসজিদ নয়, গির্জা নির্মিত হচ্ছে। অবশেষে বহু চড়াই উতরাই পেরিয়ে হেযবুত তওহীদের সদস্যদের ত্যাগ, কুরবানি ও নিরলস সংগ্রামের ফলে সেই মসজিদটি মাথা তুলে দাঁড়িয়েছে। ষড়যন্ত্রকারীদের মিথ্যা অপবাদ প্রত্যাখ্যাত হয়েছে। জনগণ প্রতি জুমায় এই শহীদী জামে মসজিদে একত্রিত হন আল্লাহর বিধান মোতাবেক জুমার সালাত আদায়ের উদ্দে

রাজধানীর উত্তরায় হেযবুত তওহীদের উদ্যোগে উন্মুক্ত ইফতার মাহফিল

রাজধানীর উত্তরায় হেযবুত তওহীদের উদ্যোগে উন্মুক্ত ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। ঢাকা জেলা উত্তর শাখা হেযবুত তওহীদের আয়োজনে ৮ এপ্রিল শনিবার বিকাল ৪টায় উত্তরার ১৪ নম্বর সেক্টরে এ ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।
পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াতের মধ্য দিয়ে শুরু হয় ইফতারপূর্ব আলোচনা সভা। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে অনুষ্ঠানস্থলে হাজার হাজার মানুষ উপস্থিত হয়। ইফতার শেষে মাগরিবের নামাজের পর শুরু হয় প্রশ্ন উত্তর পর্ব।
ঢাকা মহানগর হেযবুত তওহীদের সভাপতি ডা. মাহবুব আলম মাহফুজের সভাপতিত্বে ইফতারপূর্ব আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন হেযবুত তওহীদের এমাম হোসাইন মোহাম্মদ সেলিম।
এসময় তিনি সওমের নিয়ম, উদ্দেশ্য, শিক্ষা এবং দেশ ও সমগ্র বিশ্ব জুড়ে বিদ্যমান সামাজিক, অর্থনৈতিক, রাজনৈতিক সংকটময় পরিস্থিতি, মুসলমানদের দুর্দশা এবং এ থেকে উত্তরণের পথ নিয়ে আলোচনা করেন।
তিনি বলেন, সওম শব্দের অর্থ আত্মসংযম, নিজেকে নিয়ন্ত্রণ (Self Control) করা

সমসাময়িক বিষয়ে হেযবুত তওহীদের এমামের লাইভ

গতকাল ৩ এপ্রিল সোমবার ফেসবুক পেজ থেকে লাইভে আসেন হেযবুত তওহীদের মাননীয় এমাম জনাব হোসাইন মোহাম্মদ সেলিম। তিনি তাঁর অফিসিয়াল ফেসবুক পেজ থেকে লাইভটি করেন। “রমজানে মসজিদের সামনে সংঘর্ষ, রাজনীতিতে ধর্ম এবং প্রথম আলো“ এই বিষয়ের উপর উক্ত লাইভে তিনি চলমান বিভিন্ন ইস্যুতে মতামত ব্যক্ত করেন এবং শ্রোতাদের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নের উত্তর দেন। প্রায় তিন ঘণ্টাব্যাপী এই লাইভের আলোচনায় রমজান, সওম, তওহীদ, ঈমান, আকিদা, দীন প্রতিষ্ঠা, দীন প্রতিষ্ঠার কর্মসূচি,

ঢাকায় হেযবুত তওহীদের মহা সমাবেশ

উগ্রবাদ-সাম্প্রদায়িকতা-ধর্মব্যবসার বিরুদ্ধে গণজোয়ার
.
ঘড়িতে সকাল আটটা। ঢাকা ও এর আশোপাশের বিভিন্ন জেলা থেকে হাজারো নারী-পুরুষ মিলিত হয় রাজধানীর প্রাণকেন্দ্র গুলিস্তানে। এসময় তাদের কণ্ঠস্বরে উচ্চারিত হয়, ‘ধর্মব্যবসার ঠিকানা বাংলাদেশে হবে না’, ‘উগ্রবাদের বিরুদ্ধে, লড়তে হবে একসাথে’, ‘আমরা সবাই ভাই-ভাই, ভেদাভেদ ভুলে যাই’। এসব স্লোগানে মুখরিত হয় পুরো এলাকা। বিভিন্ন ধরনের ব্যানার, ফেস্টুন, প্ল্যাকার্ড হাতে নিয়ে সমাবেশস্থলে দলে দলে সুশৃঙ্খলভাবে প্রবেশ করে তারা। গত শনিবার গুলিস্তানে কাজী বশির মিলনায়তন প্রাঙ্গণে হেযবুত তওহীদের ঢাকা বিভাগীয় কর্মী সম্মেলনে গিয়ে এ চিত্র দেখা যায়।

রাজধানীর কাওরান বাজারে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল।

মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগর সভাপতি ডা. মাহবুব আলম মাহবুব মাহফুজ, কেন্দ্রীয় নারী বিষয়ক সম্পাদক রুফায়দা পন্নী, তথ্য বিষয়ক সম্পাদক এস এমন শামসুল হুদা, ঢাকা মহানগর সাধারণ সম্পাদক ফরিদ উদ্দিন রব্বানী, সাংগঠনিক সম্পাদক মেজবাউল ইসলাম, প্রচার সম্পাদক মুস্তাফিজুর রহমান টিটু, ঢাকা মহানগর নারী বিষয়ক সম্পাদক তাসলিমা ইসলাম, তেজগাঁও জোন সভাপতি আলহামদ, মিরপুর জোন সভাপতি আব্দুল হক বাবুল, যাত্রাবাড়ী জোন সভাপতি অলিউল্লাহ খান, রমনা জোন সভাপতি রমজান আলী, লালবাগ জোন সভাপতি হাসিবুর রহমান শাওন, এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন গাজীপুর মহানগর সভাপতি শহিদুল ইসলাম, গাজীপুর জেলা সভাপতি শাজাহান প্রধান, মানিকগঞ্জ জেলা সভাপতি মহিদুর রহমান, ঢাকা জেলা সভাপতি ইউনুস মিয়া, আশুলিয়া থানা সভাপতি জাকির হোসেন, সাভার থানা সভাপতি সোহেল তালুকদার সহ অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ নেতৃবৃন্দ। মানববন্ধন থেকে গণমাধ্যমের সামনে আমাদের নিম্নলিখিত দাবি পেশ করা হয়েছে।

গুলিস্তানে কর্মী সম্মেলনে ধর্মব্যবসার বিরুদ্ধে গণজোয়ার

রাজধানীর প্রাণকেন্দ্র গুলিস্তানে হেযবুত তওহীদের ঢাকা বিভাগীয় কর্মী সম্মেলনে ‘ধর্মব্যবসার ঠিকানা বাংলাদেশে হবে না’, ‘উগ্রবাদের বিরুদ্ধে, লড়তে হবে একসাথে’, ‘আমরা সবাই ভাই-ভাই, ভেদাভেদ ভুলে যাই’– এসব স্লোগানে হাজার হাজার নেতাকর্মী যোগ দিয়েছে। তারা বিভিন্ন ধরনের ব্যানার, ফেস্টুন, প্ল্যাকার্ড হাতে নিয়ে সমাবেশস্থলে দলে দলে সুশৃঙ্খলভাবে প্রবেশ করে। গত শনিবার গুলিস্তানে কাজী বশির মিলনায়তন প্রাঙ্গণে হেযবুত তওহীদের […]